বুধবার, ১৩ অক্টোবর, ২০২১

পুঁইমাচা গল্পের সহায়হরি চরিত্রটি আলোচনা করো প্রশ্নোত্তর

 

বাংলা অনার্স সাম্মানিক পুঁইমাচা গল্পের সহায়হরি চরিত্রটি আলোচনা করো প্রশ্নোত্তর Bengali honours puimacha golper shoyhori choritro ti alochona koro questions answer


১। "পুঁইমাচা " গল্পের সহায়হরি চরিত্রটি আলোচনা করো ।



উত্তর:- বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের "পুঁইমাচা" গল্পের প্রধান পুরুষ চরিত্র টি হল সহায়হরি । নির্ধন, অক্রমন্য, স্বভাবভীরু বলতে কিছু নেই , অথচ তিনটি কন্যা । প্রথমটাতো বিবাহযোগ্য । অর্থনৈতিক দুরবস্থা সহায়হরির গা সওয়া হয়ে গেছে বলেই সে কোনো কিছু নিয়ে তেমন ভাবতে রাজি নয় । স্ত্রীর তিরস্কারেও নয় ।




[      ] অকর্মন্য বাপ হলেও মেয়েদের সহায়হরি খুবই ভালোবাসে । তাদের খোরাক জোটাতে সে উচ্চবৃত্তি করতে , এমনকি চুরি করতেও দ্বিধা করে না । বড়ো মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে বরজ পোতায় পরের জমির মেটে আলু তুলে এনে স্ত্রীর কাছে মিথ্যা কথা বলেছে ।



[        ] সমাজে থাকতে গেলে মেয়ের বিয়ে দিতে হয় । সাধ্য কম বলেই সহায়হরি দ্বিতীয় পক্ষে ক্ষেন্তীর বিয়ে দেন । কিন্তু সে বিয়ে সুখের হয়নি । পণের আড়াইশো টাকা বাকি থাকায় ক্ষেন্তি শ্বশুরবাড়িতে যত্ন পায়নি । বসন্তে বিনা চিকিৎসায় মারা যায় । ক্ষোভে-দুঃখে সহায়হরির চোখে জল আসে । টাকা দিতে না পারায় ক্ষেন্তীর শ্বশুরবাড়ির লোক তাকে পাঠাতে চাই নি ।



[     ] অর্থ না থাকলেও সহায়হরির বংশগৌরবের অহংকার ছিল , ক্ষেন্তীর শশুর বাড়ির লোক সহায়হরিকে  "ছোটলোক " বলায় সে প্রতিবেশী বিষ্ণু সরকার কে বলেছে ,  " বলি আমরা ছোটলোক বড়লোক , তোমরা তো খুড়ো সরকার জানতে বাকি নেই , বলি পরমেশ্বর চাটুয্যর নামে নীলকুঠির আমলে এ অঞ্চলে বাঘে গরুতে এক ঘাটে জল খেয়েছে ,  আজই না হয় আমি .. বিংশ শতাব্দীর কন্যাদায়গ্রস্থ ,  অকর্মন্য প্রোঢ ব্রহ্মানের চরিত্র হিসেবে সহায়হরি অবশ্যই সার্থক চরিত্র । তবে গল্পে চরিত্র টি তেমন গুরুত্ব পায়নি ।



কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন